গাঞ্জা দিয়ে পুরোক মোটরসাইকেলের ট্যাংকি

মামুনুর রশীদ মামুন ।। কুড়িগ্রামত দুইটা মোটরসাইকেলের তেলের ট্যাংকি আরও বাইকের বিভিন্ন জাগা থাকি মোট ১১ কেজি গাঁঞ্জা উটকি পাইছে সদর থানা পুলিশ। তহনে একজনক আটক কইরচে। 

৭ ডিসেম্বর(মঙ্গলবার) দুপর‍্যা কুড়িগ্রাম সদরের ধরলা ব্রিজের পূব পাহে পুলিশ চেকপোস্ট থাকি ১১ কেজি গাঁজা, দুইটা মোটরসাইকেল আর একজনক আটক করার কথা কইছে কুড়িগ্রাম সদর থানার অফিসার ইনচার্জ খান মো. শাহরিয়ার। 

আটক মানুষটা কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ি উপজেলার বেরা কুটি বাজার এলাকার ধনিপাড়া গ্রামের মৃত মো. আব্দুল গফুরের ব্যাটা আবেদ আলী(২০)। তহন আরেকটা মোটরসাইকেলে থাকা দুইটা মানুষ পালে যায়। 

আটকি থাকা মাদক পাচারকরাইয়া আবেদ আলী এই খবরিয়্যালক  কয়, মুই ১৫ দিন আগত ঢাকা থাকি বাড়ি আইসচোং। ওডাই একটা গার্মেন্টসত চাকরি কইরচোং। আইজ বিয়্যানে হামার ওত্তিক্যার মাদক ব্যবসায়ী আক্তার সুদ্ধে আরও একজন আসি গাঞ্জাগুলক ফুলবাড়ি থেকে উলিপুর পংচে দিবার জন্যে ৬ হাজার টাকার চুক্তি করে। পরে মাদক গুলা উলিপুর হয়া নদী দিয়া জেলার বাইরে গেইল হয়। ধরলা ব্রীজের চেকপোস্টের অডি আইসলে পুলিশ হামাক আটক করে। বাকি দুইজন মোক থুয়া পালে যায়। 

ঘটনা খুলি কয় কুড়িগ্রাম সদর থানার অফিসার ইনচার্জ খান মো. শাহরিয়ার। তাই কয়, আটক করা চেংরাটা আর উটকি পাওয়া মাদক সুদ্ধে মোটরসাইকেল দুইটা থানাত আনি থুচি। আইন বুঝি বিচারের ব্যবস্থা করা হইবে।

Post a Comment

Previous Post Next Post