মুকুলন হইছে ‘একশো কবির ১০০ রাজবংশী কবিতা’র বই




কোচবিহার প্রতিনিধি

মুকুলন হইছে একশো কবির ১০০ রাজবংশী কবিতা’র বইখান। ১ জানুয়ারি ২০২২ ভাটিবেলা ৩টার সমায় কোচবিহার জেলা বইমেলাত 'একশো কবির একশো কবিতা'র বইখান মুকুলনের  করা হইছে।

মুকুলনের সমায় উপস্থিত আছিলেন উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগীয় প্রধান ড. নিখিলেশ রায়, কুচবিহার জেলা শাসক মানী পবন কাদিয়াল মহাশয়, আলিপুরদুয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য ড. মহেন্দ্র নাথ রায়, পঞ্চানন বর্মা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা বিভাগের ডিন ড. মাধব অধিকারী, কুচবিহার ক্ষত্রিয় সোসাইটির সভানেত্রী শ্রীমতি অন্নময়ী অধিকারী, জলপাইগুড়ি এ সি কলেজের অধ্যাপক ড. বিশ্বজিৎ রায়, এন বি এস টি সি'র চেয়ারম্যান তথা প্রাক্তন সাংসদ পার্থপ্রতীম রায়, তুরা কলেজের বাংলা বিভাগের প্রধান অধ্যাপক অলোক সাহা, কবি সন্তোষ সিংহ, কবি জগদীশ আসোয়ার, কবি যতীন বর্মা, কবি শৈলেন দাস, কবি পীযুষ সরকার, দেবজ্যোতি রায় ও অইন্যান্য মানী অতিথি ও কবি সাহিত্যিক মানষিলা। 

মাড়েঞার ঘরের সৌভিক রায় কয়, আমরালা সত্যিই খুশী এত্তবড়ো একটা কাজ করির পাবার বাদে। এইবাদে নানান ভাবে হাত বাড়ে দেওয়া মানষিলাক সগাকে জানাই ইংরাজী নয়া সালের হিদ্দের শুবাঞ্ছা আরহ্ ভক্তি শ্রদ্ধা। আমাল্লার পরবত্যী উজ্জোগ  "একশো লেখাইয়ার একশো রাজবংশী গল্প"র বই প্রকাশ। হামারা খুব তাড়াতাড়ি এই কাজত হাত দিবার নাগিছি। মানী লেখাইয়ালাক মনে মনে তৈয়ার হবার বাদে আটুশ আবদার রাখিলং। বড়োলাক মোর দণ্ডবৎ আর ছোটোলাক হিদ্দের সুবাঞ্ছা।
বইখান পাওয়া যাবে কুচবিহার বইমেলাত পাইকান প্রকাশনীত (২৪ নং স্টলত)। 

হামার বাও // জরীফ

2 Comments

  1. বইখান কায়ো হাতোত পাইলে মোক ধার দেন।

    ReplyDelete
Previous Post Next Post